/ins>

বঙ্গবন্ধু-১ স্যাটেলাইট মহাকাশে : হার্ভার্ডে আনন্দ-উল্লাস

হাকিকুল ইসলাম খোকন

বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা এখন মহাকাশে। এটি ছোট্ট একটি স্যাটেলাইট নয়, এর সাথেবাঙালির, বাংলাদেশের অস্তিত্ব, মহিমা, গৌরব জড়িত। বাঙালির আবেগ, চেতনা এবং কোথায় যাচ্ছে বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা। ১৬ কোটি মানুষেরচেতনা কতটা বিকশিত, কতটা উদ্বেলিত। এর সাথে গোটা বাংলাদেশেরএগিয়ে চলার প্রত্যয় গ্রোথিত। এটি নানাভাবে আমাদের কৃষি, শিল্প সকল সেক্টরে সহযোগিতা করবে। এই যে মানুষের মনে যে ব্যাপক পরিবর্তন, তারসাথেই তো আমাদের অর্থনৈতিক অগ্রযাত্রা। এই স্যাটেলাইট বাঙালির মধ্যেযে চেতনা জাগিয়েছে, তার পথ ধরে বাংলাদেশ বহুদূর এগিয়ে যাবে টেকসইউন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনে’-এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রীর এসডিজি বিষয়ক মূখ্যসমন্বয়কারি আবুল কালাম আজাদ

বিশ্বখ্যাত হার্ভার্ড ইউনিভার্সিটিতেবাংলাদেশ রাইজিংশীর্ষক দিনব্যাপী একআন্তর্জাতিক সেমিনারের আগের সন্ধ্যা ১১ মে শুক্রবার বাংলাদেশ, যুক্তরাষ্ট্রসহ বিভিন্ন দেশের অর্থনীতিবিদ, গবেষক, টনীতিক, বাংলাদেশেরউন্নয়ন সহযোগী এবং নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিদের এক ডিনারসভাঅনুষ্ঠিত হয়। সেখানে আনন্দউল্লাস করেন সকলে। বঙ্গবন্ধু মহাকাশেযথাযথভাবে যাত্রা করার ঘটনাকে স্বাগত জানিয়ে বিদ্যুৎ জ্বালানীপ্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ এমপি বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশদীপ্ত প্রত্যয়ে এগিয়ে চলেছে। সারাবিশ্বে উন্নয়নের মডেলে পরিণত হয়েছেবঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ

ইউনিভার্সিটি অব ম্যাসেচুসেট্্স অর্থনীতি বিভাগের জ্যেষ্ঠ শিক্ষক . নূরুল সামিউল আমান বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু যেমন গোটা জাতিকে মুক্তিযুদ্ধেরপ্রতি উদ্বুদ্ধ করেছিলেন জাদুকরি নেতৃত্বের গুণে, ঠিক তেমনিভাবে তার কন্যাশেখ হাসিনাও গোটা জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করেছেন উন্নয়নের অভিযাত্রায়। এইধারায় নব অধ্যায়ের সূচনা ঘটালো বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট।
বিশ্বখ্যাত এমআইটির অধ্যাপক . ইকবাল কাদির বলেন, গত বছরযাবত আমরা বস্টনভিত্তিক থিঙ্কট্যাংকআইএসডিআই’ (ইন্টারন্যাশনালসাসটেইনেবল ডেভেলপমেন্ট ইন্সটিটিউট) এর ব্যানারে বাংলাদেশের উন্নয়নসম্ভাবনা এবং অন্তরায় নিয়ে আন্তর্জাতিক সেমিনার করছি। উন্নয়নের গতিত্বরান্বিত করতে বিশেষজ্ঞরা পরামর্শ দেন। এবারও সেটি ঘটবে।’  ‘শেখহাসিনার নেতৃত্বে ঘুরে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট সেইঅবস্থানকে গোটবিশ্বের সামনে আরো জোরদার করলো। ডিজিটালবাংলাদেশ রচনায় এই স্যাটেলাইটের ভূমিকা অপরিসীম।আন্তর্জাতিক সেমিনারের পৃষ্টপোষকতায় রয়েছে সামিট পাওয়ার, জেনারেল ইলেক্ট্রনিক্স, বসুন্ধরা গ্রুপ, এনার্জিপ্যাক বাংলাদেশ

/ins>

গত এক দশক ধরে বাংলাদেশে অর্ধনৈতিক প্রবৃদ্ধির ধারা উচ্চমুখী, গত বছর ধরে তা শতাংশের উপরে রয়েছে, যা নিয়ে অনেক অর্থনীতিবিদবিস্ময় প্রকাশ করেছেন। বিশ্ব ব্যাংকের মাপকাঠিতে মধ্যম আয়ের দেশেউন্নীত হওয়ার পর এবছরই বাংলাদেশকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হওয়ারযোগ্যতা অর্জনের স্বীকৃতি দিয়েছে জাতিসংঘ। বাংলাদেশের উন্নয়নের এইগতির চালিকাশক্তি কী এবং বৈশ্বিক অভিজ্ঞতার আলোকে তা কীভাবেআরও গতিশীল করা যায়সম্মেলনে তা নিয়ে আলোচনা হবে বলেজানিয়েছে আইএসডিআই

/ins>

অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তিকরণ, বিদেশি বিনিয়োগ, বিদ্যুৎ, টেকসই উন্নয়নেরলক্ষ্যমাত্রা অর্জনের মত বিষয়গুলো আলোচিত হবে এই সম্মেলনে।সম্মেলনের অধিবেশনগুলোতেসামষ্টিক অর্থনীতির প্রতিশ্রুতি সংস্কার, সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ, অর্থনৈতিক অঞ্চলগুলোর সম্ভাবনা, বিদ্যুৎউৎপাদন গতিশীলতা আনা, বাণিজ্যে নারীর নেতৃত্ব, তথ্য প্রযুক্তির প্রসারনিয়েও আলোচনা হবে

/ins>

Comments With Facebook
সর্বশেষ